বাংলাদেশ: রবিবার ১৯শে সেপ্টেম্বর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ
৪ঠা আশ্বিন, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ | ১২ই সফর, ১৪৪৩ হিজরি

  বাংলাদেশ: রবিবার ১৯শে সেপ্টেম্বর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ | ৪ঠা আশ্বিন, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ | ১২ই সফর, ১৪৪৩ হিজরি  

শেষ আপডেটঃ ১:৫২ পিএম

ইসলামি সঙ্গীতশিল্পী ইকবাল মাহমুদের সফল অগ্রযাত্রা

কাফন আমার আপন কবর আমার ঘাঁটি, ওই কবরে যেতে হবে থাকবে না কেউ সাথী- জনপ্রিয় এ ইসলামি সঙ্গীতটি বহুদিন ধরেই মানুষের পছন্দের শীর্ষে রয়েছে। গানটির সুরকার ও গীতিকার জনপ্রিয় ইসলামি সঙ্গীতশিল্পী ইকবাল মাহমুদ।

২০০৭ সালের শেষের দিকে সঙ্গীতগুরু আব্দুল মঈনের হাত ধরে কলরবের প্রতিষ্ঠাতা আইনুদ্দীন আল আজাদের দর্শনে সংগীত জগতে পা রাখেন ইকবাল মাহমুদ। শুরু থেকেই হৃদয়গ্রাহী বিভিন্ন সংগীতের মাধ্যমে শ্রোতাদের নজর কাড়তে সক্ষম হয়েছেন তরুণ এই শিল্পী।

নিজের গাওয়া গান ছাড়াও ইকবাল মাহমুদ গীতিকার এবং সুরকার হিসেবেও বেশ জনপ্রিয়। তার কম্পোজ করা বহু জনপ্রিয় সংগীত ইতোমধ্যে কলরবসহ বিভিন্ন ইউটিউব চ্যানেলে রিলিজ হয়েছে।

ইকবাল মাহমুদের সুরকরা ও গাওয়া গানের মধ্যে- কাফন আমার আপন, স্বপ্ন, ক্ষমা করে দাও, মুহাম্মাদ, ভবের খেলা, হামদে বারী তায়ালা, প্রিয়তমা জান্নাত, এলো রবিউল আউয়াল, বিপ্লবী বীর ইত্যাদি বেশ আলোচিত ও জনপ্রিয়।

ইসলামি সংগীত নিয়ে ইকবাল মাহমুদের পরিকল্পনার কথা জানতে চাইলে তিনি বলেন, কোনো জাতি এগিয়ে যাওয়ার পেছনে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে সংস্কৃতি। যেহেতু আমরা ইসলামি সংস্কৃতি চর্চা করি তাই ইসলামী সংগীতের মাধ্যমে সমাজ পরিবর্তনে নিজেকে স্বার্থবিহীন কর্মী হিসেবে শামিল রাখতে চাই।

সঙ্গীতের পাশাপাশি আরেক ইকবাল মাহমুদ একজন সফল ‘ফ্রিল্যান্সার’। গত ৩ বছর যাবত ‘লোগো’ এবং ‘ব্রান্ডিং ক্যাটাগরিতে সফলতার সঙ্গে কাজ করছেন তিনি। খুব শিগগিরই নিজের প্রতিষ্ঠিত আইটি কোম্পানি ‘ইতকান’ চালুর ঘোষণা দেবেন তরুণ এই সংগীতশিল্পী।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *