বাংলাদেশ: শুক্রবার ১৭ই সেপ্টেম্বর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ
২রা আশ্বিন, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ | ১০ই সফর, ১৪৪৩ হিজরি

  বাংলাদেশ: শুক্রবার ১৭ই সেপ্টেম্বর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ | ২রা আশ্বিন, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ | ১০ই সফর, ১৪৪৩ হিজরি  

শেষ আপডেটঃ ১০:৪৭ পিএম

গাইবান্ধায় বন্যার প্রকোপে ১৭ ইউপি প্লাবিত

গত ২৪ ঘণ্টায় ব্রহ্মপুত্র ও ঘাঘট নদীর পানি বেড়েছে। গাইবান্ধা জেলায় উজান থেকে নেমে আসা ঢলে নদীর পানি বৃদ্ধি পাওয়ায় বন্যা পরিস্থিতি ভয়াবহ রুপ ধারণ করেছে। এদিকে জেলার সুন্দরগঞ্জ, ফুলছড়ি, সাঘাটা ও সদর উপজেলার ১৭ টি ইউপি প্লাবিত হয়েছে। এসকল এলাকার প্রায় ৪০ হাজার মানুষ পানি বন্দী অবস্থায় মানবেতর জীবনযাপন করছে।

বৃহস্পতিবার (২ সেপ্টেম্বর) বিকেল ৩টা টার দিকে ব্রহ্মপুত্রের পানি ফুলছড়ি পয়েন্টে ৫০ সেন্টিমিটার ওপর দিয়ে প্রবাহিত হচ্ছে। অপরদিকে ঘাঘটের পানি জেলা শহরের নতুন ব্রিজ এলাকায় বিপদসীমার ১৬ সেন্টিমিটার ওপর দিয়ে প্রবাহিত হচ্ছে। তবে তিস্তা ও করতোয়ার পানি আজ বিকেলে বিপদসীমা ছুঁই ছুঁই করছে।

গাইবান্ধা পানি উন্নয়ন বোর্ডের নির্বাহী প্রকৌশলী মো. মোখলেছুর রহমান বলেন, পানি বাড়লেও বড় বন্যা হওয়ার আশঙ্কা নেই। কয়েক দিনের মধ্যই পানি কমতে শুরু করবে।

অপর দিকে বন্যার কারণে জেলার চার উপজেলার ১ হাজার ৫১৫ হেক্টর জমির রোপা আমন ও শাক সবজি ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। বন্যা কবলিত এলাকায় বিশুদ্ধ পানির সংকট দেখা দিয়েছে। এছাড়া পানি বন্দীদের মধ্য ত্রাণ সামগ্রী বিতরণ করতে এগিয়ে আসেনি কেউ। পাশাপাশি পানি বন্দীদের উদ্ধারে প্রশাসন এখনো নিরুত্তাপ রয়েছে।

এ বিষয়ে গাইবান্ধার ডিসি মো. আব্দুল মতিন বলেন, বন্যা কবলিত জেলার চারটি উপজেলায় দুই লাখ টাকা ও ৮০ মেট্রিক চাল বরাদ্ধ করা হয়েছে। শিগগিরই এগুলো বিতরণ করা হবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *