বাংলাদেশ: শনিবার ১৮ই সেপ্টেম্বর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ
৩রা আশ্বিন, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ | ১১ই সফর, ১৪৪৩ হিজরি

  বাংলাদেশ: শনিবার ১৮ই সেপ্টেম্বর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ | ৩রা আশ্বিন, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ | ১১ই সফর, ১৪৪৩ হিজরি  

শেষ আপডেটঃ ১১:৩০ পিএম

নারীর পর্দা ও চলাফেরা

ইসলামে নারীদের জন্য বিধিনিষেধগুলোর মধ্যে সবথেকে গুরুত্বপূর্ণ হচ্ছে পর্দাপ্রথা। ইসলামে নারী এবং উভয়ের পর্দা করাকে ফরজ করা হয়েছে অর্থাৎ অবশ্য করনীয় কাজ।আল্লাহকে ভালোবেসে,ইসলাম ধর্মের প্রতি সম্মান রেখে পবিত্র মনে ইসলামি বিধিনিষেধ পালন করে চলা অবশ্যই প্রত্যেক মুসলিমের জন্য গুরুত্বপূর্ণ কর্তব্য।

পর্দা একটি খুব বিস্তৃত বিষয়। আমাদের সমাজের বেশিরভাগ মানুষ পর্দা সম্পর্কে পরিষ্কার ধারনা রাখেনা তারা পর্দা করা বলতে বোরখা পড়া, হিজাব পড়া, নেকাব পড়া এসবই বুঝে থাকেন। কিন্তু এইসব বিষয় পর্দা রীতির একটি খুব গুরুত্বপূর্ণ অংশ হকে এগুলো দ্বারা সামগ্রিক পর্দা বিষয়টি বুঝানো হয় না।

নিজেকে পুরোপুরি আবৃত করে রাখার পাশাপাশি পর্দা করার আরও বিভিন্ন নিয়ম ও বিধিনিষেধ রয়েছে। সবথেকে গুরুত্বপূর্ণ যে বিষয় হচ্ছে চিরাচরিত ভাবে পর্দাকে শুধু নারীদের বিধি হিসেবেই মনে করা হলেও পর্দা কিন্তু পুরুষদেরও করতে হবে আর পুরুষদের পর্দা হচ্ছে চোখের পর্দা।

আল্লাহতায়ালা পবিত্র কোরআনের সূরা নুরে ইরশাদ করেছেন, ‘মুমিনদেরকে বলুন, তারা যেন তাদের দৃষ্টি নত রাখে এবং তাদের যৌনাঙ্গের হেফাজত করে। এতে তাদের জন্য খুব পবিত্রতা রয়েছে। নিশ্চয়ই তারা যা করে, আল্লাহ তা সম্পর্কে অবহিত আছেন। আর ঈমানদার নারীদেরকে বলুন, তারা যেন তাদের দৃষ্টিকে নত রাখে এবং তাদের যৌনাঙ্গের হেফাজত করে। তারা যেন যা সাধারণত প্রকাশমান- তাছাড়া তাদের সৌন্দর্য প্রদর্শন না করে এবং তারা যেন তাদের ওড়না বক্ষদেশে দিয়ে রাখে এবং তারা যেন তাদের স্বামী, পিতা, শ্বশুর, পুত্র, স্বামীর পুত্র, ভ্রাতা, ভ্রাতুষ্পুত্র, ভগ্নিপুত্র, স্ত্রীলোক, অধিকারভুক্তবাদী, যৌনকামনামুক্ত পুরুষ ও বালক যারা নারীদের গোপন অঙ্গ সম্পর্কে অজ্ঞ তাদের ব্যতীত কারও কাছে তাদের সৌন্দর্য প্রকাশ না করে। তারা যেন তাদের গোপন সাজ-সজ্জা প্রকাশ করার জন্য জোরে পদচারণা না করে। ’ –সূরা নুর: ৩০-৩১।

ইসলামে নারীদের পর্দা করা বিষয়টির মধ্যে অনেকগুলো বিষয় অন্তর্ভুক্ত আছে। যেমন- প্রথম এবং সবথেকে গুরুত্বপূর্ণ হচ্ছে নিজেকে আবৃত করে রাখা যেন তার জন্য গায়রে মাহরাম এমন কোনো পুরুষের দৃষ্টিতে যেন সে না পড়ে। এমনকি ঘরের মধ্যে ও পরিবারের সদস্য এবং আত্মীয় স্বজনের সামনেও পর্দা করা বিধান রয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *