বাংলাদেশ: রবিবার ১৯শে সেপ্টেম্বর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ
৪ঠা আশ্বিন, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ | ১২ই সফর, ১৪৪৩ হিজরি

  বাংলাদেশ: রবিবার ১৯শে সেপ্টেম্বর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ | ৪ঠা আশ্বিন, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ | ১২ই সফর, ১৪৪৩ হিজরি  

শেষ আপডেটঃ ১:৫২ পিএম

বিশ্বের সবচেয়ে বড় ১০ টি নদী

নদীর বুকে আছে সুখ, নদী বোঝে মনের দুঃখ! এমনিভাবে নদীর প্রশংসা করা যেতেই পারে। কেননা নদীর পাড়ে শান্তি খুঁজতে, নদীর সাথে গল্প করতে মানুষ ছুটে যায় নদীর কাছে। নদী একটা শান্তির জায়গা। নদীকে ঘিরে রচনা হয়েছে কত গল্প, কবিতা। বেশিরভাগ কবি সাহিত্যিকদের সখ্যতা হয় নদীর সাথে। যারা নদীর গভীরতা বুঝে নিজের মনের মাধূরী দিয়ে গল্প সাজায় লেখনীতে।

বিশ্বে রয়েছে অনেক বড় বড় নদী। আজ আলোচনায় থাকছে বিশ্বের ১০ টি বড় নদী নিয়ে-

১. নীল নদ: পৃথিবীর বৃহত্তম নদী নীল নদ। নীল নদের দৈর্ঘ্য ৬,৬৫০ কিলোমিটার। ইথিওপিয়া, ইরিত্রিয়া, সুদান, উগান্ডা, তাঞ্জানিয়া, কেনিয়া, রুয়ান্ডা, বুরুন্ডি, মিশর, কঙ্গো, দক্ষিণ সুদান ইত্যাদি দেশের মাঝ দিয়ে প্রবাহিত হয়ে শেষে এসে মিশেছে ভূমধ্যসাগরে।

২. আমাজান: পৃথিবীর সব চেয়ে বড় নদী হচ্ছে আমাজন নদী। একটি নদী কি পরিমাণ পানি প্রবাহিত করে তার উপর ভিত্তি করেই বড় নদী নির্বাচিত করা হয়। সেই হিসেবে আমাজন নদী প্রতি সেকেন্ডে ১,৮০,০০০ কিউবিক মিটার পানি প্রবাহিত করে, পৃথিবীর সব চেয়ে বড় নদী হিসেবে নিজের স্থান দখল করে আছে।

৩. ইয়াংজি: এ নদীর দৈর্ঘ্য ৬,৩০০ কিলোমিটার। চীনে মাঝ দিয়ে প্রবাহিত হয়ে শেষে এসে মিশেছে পূর্ব চীন সাগরে।

৪. মিসিসিপি: মিসিসিপি (Mississippi) নদীর দৈর্ঘ্য ৬,২৭৫ কিলোমিটার। মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র ও কানাডার মাঝ দিয়ে প্রবাহিত হয়ে শেষে এসে মিশেছে মেক্সিকো উপসাগরে।

৫. ইয়েনিছি: ইয়েনিছি নদীর দৈর্ঘ্য ৫,৫৩৯ কিলোমিটার। রাশিয়া ও মঙ্গোলিয়ার মাঝ দিয়ে প্রবাহিত হয়ে শেষে এসে মিশেছে (Kara Sea)কারা সাগরে।

৬. ইয়োলো রিভার: হলুদ এ নদীর দৈর্ঘ্য ৫,৪৬৪ কিলোমিটার।চীনের মাঝ দিয়ে প্রবাহিত হয়ে শেষে এসে মিশেছে Bohai Sea তে।

৭. ওবি: ওবি নদীর দৈর্ঘ্য ৫,৪১০ কিলোমিটার। রাশিয়া, কাজাখিস্তান, চীন, মঙ্গোলিয়া ইত্যাদি দেশের মাঝ দিয়ে প্রবাহিত হয়ে শেষে এসে মিশেছে ওবি উপসাগরে।

৮. পারানা: পারানা নদীর দৈর্ঘ্য ৪,৮৮০ কিলোমিটার। ব্রাজিল, আর্জেন্টিনা, প্যারাগুয়ে, বোলিভিয়া, উরুগুয়ে ইত্যাদি দেশের মাঝ দিয়ে প্রবাহিত হয়ে শেষে এসে মিশেছে Río de la Plata এ।

৯. কঙ্গো: কঙ্গো নদীর দৈর্ঘ্য ৪,৭০০ কিলোমিটার। কঙ্গো, মধ্য আফ্রিকান প্রজাতন্ত্র, এ্যাঙ্গোলা, তাঞ্জানিয়া, ক্যামেরুন, জাম্বিয়া, বুরুন্ডি, রুয়ান্ডা ইত্যাদি দেশের মাঝ দিয়ে প্রবাহিত হয়ে শেষে এসে মিশেছে আটলান্টিক মহাসাগরে।

১০. আমুর: আমুর নদীর দৈর্ঘ্য ৪,৪৪৪ কিলোমিটার। রাশিয়া, চীন, মঙ্গোলিয়া ইত্যাদি দেশের মাঝ দিয়ে প্রবাহিত হয়ে শেষে এসে মিশেছে Sea of Okhotsk এ।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *