az 9 5

স্টেডিয়ামে ব্যাগ চুরি, থানায় গিয়ে অবাক আর্জেন্টিনার নারী সাংবাদিক

আগের সংবাদ
az 11 4

সকালের নাস্তায় কি শর্করা খাবেন?

পরের সংবাদ

বুয়েটে নবীন শিক্ষার্থীদের পরিচিতি সভা অনুষ্ঠিত

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট ঢাকা

প্রকাশিত: ২০২২-১১-২৩ , ২:১০ অপরাহ্ণ
আপডেট: ২০২২-১১-২৩ , ২:১০ অপরাহ্ণ
az 10 5

বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয়ের (বুয়েট) ২০২১-২২ শিক্ষাবর্ষের লেভেল-১/টার্ম-১-এর নবীন শিক্ষার্থীদের পরিচিতি সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে।

রোববার এক বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়েছে।

এর আগে শনিবার বিকালে বুয়েটের জিমনেসিয়াম কমপ্লেক্সে পরিচিতি সভা অনুষ্ঠিত হয়। এতে অভিভাবক, শিক্ষার্থীসহ প্রায় দেড় হাজার জন অংশগ্রহণ করেন।

অনুষ্ঠানে বুয়েটের উপাচার্য অধ্যাপক ড. সত্য প্রসাদ মজুমদার প্রধান অতিথি ও উপ-উপাচার্য অধ্যাপক ড. আব্দুল জব্বার খাঁন বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন।

বুয়েটের রেজিস্ট্রার প্রফেসর ড. মো. ফোরকান উদ্দিনের সঞ্চালনায় পরিচিতি সভা অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন ছাত্রকল্যাণ পরিদপ্তরের পরিচালক অধ্যাপক ড. মো. মিজানুর রহমান। এ সময় বক্তব্য দেন পুরকৌশল অনুষদের ডিন অধ্যাপক ড. আবু সিদ্দিক, তড়িৎ ও ইলেক্ট্রনিক কৌশল অনুষদের ডিন অধ্যাপক ড. কাজী দ্বীন মোহাম্মদ খসরু, স্থাপত্য ও পরিকল্পনা অনুষদের ডিন অধ্যাপক ড. ইশরাত ইসলাম, যন্ত্রকৌশল অনুষদের ডিন অধ্যাপক ড. মো. এহসান ও বিজ্ঞান অনুষদের ডিন অধ্যাপক ড. জীবন পোদ্দার।

প্রধান অতিথির বক্তব্যে উপাচার্য অধ্যাপক ড. সত্য প্রসাদ মজুমদার নবীন শিক্ষার্থীদের উদ্দেশে বলেন, বাবা-মা তোমাদের অনেক কষ্টে লালন-পালন করেছেন। তাদের আশা পূরণ করতে হবে। বুয়েটে ভর্তির সুযোগ পাওয়া যত সহজ, বুয়েট থেকে গ্র্যাজুয়েশন শেষ করে বের হওয়া তত সহজ নয়। অনেককেই দেখেছি তারা গ্র্যাজুয়েশন শেষ করেতে পারেনি। তাই পড়াশোনার প্রতি দৃঢ় সংকল্প থাকতে হবে। সময়কে কাজে লাগাতে হবে। নিজেকে তৈরি করো। শিক্ষকদের সঙ্গে সুসম্পর্ক বজায় রাখো। এখান থেকে পড়া শেষ করে বিদেশ যাও, তবে সেখানে উচ্চ শিক্ষা নিয়ে দেশে ফিরে আসতে হবে। দেশের মানুষের সেবা করতে হবে। দেশের মানুষের ঋণ শোধ করতে হবে।

উচ্চ শিক্ষা গ্রহণে বিদেশগামী শিক্ষার্থীদের সুপারিশপত্র (রিকোমান্ডেশন লেটার) দেওয়ার ক্ষেত্রে শিক্ষার্থীদের দেশে ফিরে আসার শর্তজুড়ে দেন বলে জানান উপাচার্য ড. মজুমদার।

বিশেষ অতিথির বক্তব্যে উপ-উপাচার্য অধ্যাপক ড. আব্দুল জব্বার খাঁন নবীন শিক্ষার্থীদের উদ্দেশে বলেন, তোমাদের পেছনে প্রতিমাসে সরকারের খরচ হবে আনুমানিক ৩০ হাজার টাকা। এ টাকা জনগণের টাকা। সুতরাং এ অর্থের সুষম ব্যবহার নিশ্চিত করতে হবে। জনগণকে সেবা দেওয়ার মাধ্যমে সেটি ফেরত দিতে হবে।

এছাড়া শিক্ষার্থীদের পাঠ্য বইয়ের বাইরে সাহিত্য পড়া ও সংস্কৃতি চর্চার ওপর গুরুত্বারোপ করেন উপ-উপাচার্য ড. খাঁন। অনুষ্ঠানে বুয়েটের বিভিন্ন বিভাগের বিভাগীয় প্রধান, ইনস্টিটিউট, অফিস ও পরিদপ্তরের পরিচালক, হলের প্রভোস্ট, শিক্ষকরা অন্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন।

মন্তব্য করুন

যে মন্তব্যগুলো খবরের বিষয়বস্তুর সাথে মিল আছে এবং আপত্তিজনক হবে না সেই মন্তব্যগুলোই দেখানো হবে। প্রকাশিত মন্তগুলো পাঠকের নিজস্ব মতামত। পাঠকের কোন মন্তব্যের জন্য AZnewsbd কোন দায়ভার গ্রহণ করবে না।

জনপ্রিয়