বাংলাদেশ: শনিবার ১৮ই সেপ্টেম্বর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ
৩রা আশ্বিন, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ | ১১ই সফর, ১৪৪৩ হিজরি

  বাংলাদেশ: শনিবার ১৮ই সেপ্টেম্বর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ | ৩রা আশ্বিন, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ | ১১ই সফর, ১৪৪৩ হিজরি  

শেষ আপডেটঃ ১১:৩০ পিএম

৫ টা কার্যকর মাস্ক

কোভিড-১৯ ছড়িয়ে পড়ার অন্যতম প্রধান উপায় হলো শ্বাসনালী থেকে বেরিয়ে আসা ক্ষুদ্র জলকণা, যা মানুষ কথা বলা, গান গাওয়া, কাশি বা হাঁচি দেওয়ার সময় বেরিয়ে আসে। এটি কোভিড-১৯ এর প্রাদুর্ভাব বেশি এমন স্থানগুলোতে শারীরিক দূরত্ব বজায় রাখা এর গুরুত্বপূর্ণ হওয়ার অন্যতম কারণ। তবে জনাকীর্ণ স্থানগুলোতে অন্যদের কাছ থেকে দূরত্ব বজায় রাখা সবসময় সম্ভব নয়, যে কারণে এই ধরনের পরিস্থিতিতে সবাইকে সুরক্ষিত থাকার জন্য মাস্ক ব্যবহারের পরামর্শ দেওয়া হয়।

জেনে নিন ৫ টা কার্যকর মাস্ক সম্পর্কে___

১. মেডিকেল মাস্ক:
মহামারিজনিত কারণে বিশ্বব্যাপী মেডিকেল মহামারিজনিত কারণে বিশ্বব্যাপী মেডিকেল মাস্কের ঘাটতি দেখা দিয়েছে। যদি আপনি বা পরিবারের কোনো সদস্য কোভিড-১৯ এর কারণে গুরুতর অসুস্থ হয়ে পড়ার উচ্চ ঝুঁকিতে থাকেন (৬০ বছরের বেশি বয়সী বা অন্য কোনো স্বাস্থ্যগত সমস্যায় আক্রান্ত) কিংবা আপনি যদি কোভিড-১৯ এ আক্রান্ত কারো পরিচর্যায় নিয়োজিত থাকেন, তবে সেক্ষেত্র মেডিকেল মাস্ক ব্যবহারের পরামর্শ দেওয়া হয়।

২. N95 বা সমমানের মাস্ক:
বাজারে যে কয়ধরনের মাস্ক পাওয়া যায় তার মধ্যে যে কোন ধরণের এয়ার-বর্ণ ভাইরাস আব জীবাণুর ক্ষেত্রে সবচেয়ে কার্যকারী হচ্ছে N95 বা সমমানের গুলো যেমন KN95, FFP2 এই ধরনের মাস্ক বাতাসে থাকা ধূলিকণার (PM2.5) নুন্যতম ৯৫ ভাগকে ফিলটার করতে পারে। এই মাস্ক গুলো সাধারণত যারা সরাসরি করোনা ভাইরাসের রোগী নিয়ে কাজ করেন যেমন ডাক্তার, নার্স, এবং স্বাস্থ্য কর্মীরা তাদের জন্য।

৩. সারজিকাল মাস্ক:
সারজিকাল মাস্ক সাধারনত হাঁসপাতালের ডাক্তার-নার্সরা অপারেশন এর সময় ব্যবহার করেন। এর উদ্দেশ্য হচ্ছে স্বাস্থ্য কর্মীদের দ্বারা যেন রোগী ইনফেকশনের স্বীকার না হন। এই মাস্ক আপনার হাঁচি-কাশি থেকে অন্যদের রক্ষা করবে। এটা ডিস্পজেবল মাস্ক অর্থাৎ একবার ব্যবহার করেই ফেলে দিতে হয়।

৪. কাপড়ের মাস্ক:
কাপড়ের মাস্ক যেটা মুলত সর্বসাধারণের ব্যবহারের জন্য। এটাও হাঁচি-কাশি দ্বারা যেন ইফেকশন না ছড়ায় তার জন্য সবাইকে ব্যবহার করতে বলা হয়। এটা সুরক্ষার দিক থেকে সারজিকাল মাস্কের পরে অবস্থান। তবে সুবিধা হচ্ছে আপনি এটা ধুয়ে প্রতিদিন ব্যবহার করতে পারবেন।

৫. কাপড়ের মাস্ক PM2.5 ফিল্টার সহ:
এই ফিল্টার থাকায় আপনি সাধারণ কাপড়ের মাস্কের তুলনায় বাড়তি সুরক্ষা পাবেন। অতিমাত্রায় বায়ু দূষণ আছে এই ধরণের দেশ বা শহর গুলোয় সাধারণ সময়েও দূষণের ক্ষতিকর প্রভাব থেকে সুরক্ষার জন্য ডাক্তাররা সব সময় এই ধরণের মাস্ক পরার জন্য পরামর্শ দিয়ে থাকেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *