অপূর্ব’র নামে অর্থ আত্মসাৎ ও চুক্তিভঙ্গের অভিযোগ

বিনোদন ডেস্ক এজেড নিউজ বিডি, ঢাকা
অপূর্ব’র নামে অর্থ আত্মসাৎ ও চুক্তিভঙ্গের অভিযোগ
ছবি: সংগৃহীত

জনপ্রিয় অভিনেতা জিয়াউল ফারুক অপূর্ব বিনোদন জগতে বেশ সজ্জন হিসেবেই পরিচিত। তবে তার নামে অর্থ আত্মসাৎ, চুক্তি ভঙ্গ ও শিডিউল ফাঁসানোর অভিযোগ এনেছে একটি প্রযোজনা প্রতিষ্ঠান।

আলফা আই স্টুডিওস লিমিটেড (আলফা আই) নামের একটি প্রতিষ্ঠান এ অভিযোগ আনে।

প্রতিষ্ঠানটির দাবি, প্রতিষ্ঠান থেকে ২৪টি নাটকের জন্য ৫০ লাখ টাকায় চুক্তিবদ্ধ হন অপূর্ব। তবে মাত্র ৯টি নাটকে কাজ করে তেত্রিশ লাখ টাকা নিয়ে সব ধরনের যোগাযোগ থেকে বিরত রয়েছেন এই অভিনেতা।

এতে প্রযোজনা প্রতিষ্ঠানটি আর্থিক ক্ষতির অভিযোগ এনে টেলিভিশন অ্যান্ড ডিজিটাল প্রোগ্রাম প্রডিউসারস অ্যাসোসিয়েশন অব বাংলাদেশ (টেলিপাব) এবং অভিনয় শিল্পী সংঘের কাছে বিচার চেয়ে লিখিত অভিযোগ করেছেন।

আলফা আইয়ের ব্যবস্থাপনা পরিচালক শাহরিয়ার করিম ভূঁইয়া সোমবার (১১ মার্চ) এ অভিযোগ করেন।

অপূর্বর বিপরীতে আনীত অভিযোগে বলা হয়েছে, জিয়াউল ফারুক অপূর্ব ১ নভেম্বর ২০২২ তারিখ হইতে ৩১ অক্টোবর ২০২৩ পর্যন্ত আলফা আই স্টুডিওস লিমিটেডকে প্রতি মাসে ৩ দিন শিডিউল দিবেন এবং ওই ৩ দিনে ২টি নাটকের শুটিং হবে। যদি কোনো মাসে ৩ দিন শুটিং করার শিডিউল দিতে না পারেন তবে পরবর্তী মাসের সঙ্গে মো. জিয়াউল ফারুক অপূর্ব সমন্বয় করবেন। তবে চুক্তি অনুযায়ী কাজ করেননি তিনি, দাবি প্রযোজনা প্রতিষ্ঠানটির।

এমতাবস্থায় গেল ৩ মার্চ অভিনেতার বিরুদ্ধে ৭ দিনের সময় বেঁধে দিয়ে লিগ্যাল নোটিশ পাঠায় প্রযোজনা প্রতিষ্ঠান। তবে সময় অতিক্রম হলেও যোগাযোগ করেননি অপূর্ব। বিষয়টি আদালত পর্যন্ত গড়ানোর আগেই সংগঠনকে অবগত করেন সমাধানের জন্য।

টেলিভিশন প্রোগ্রাম প্রডিউসারস অ্যাসোসিয়েশন অব বাংলাদেশের (টেলিপ্যাব) সাধারণ সম্পাদক সাজু মুনতাসির সঙ্গে যোগাযোগ করা হলে অভিযোগটি পেয়েছেন জানিয়ে বলেন, “আমরা খুব দ্রুত একটি মিটিং করে দুই পক্ষকে ডেকে বিষয়টি জানব। বিষয়টি সাংগঠনিকভাবেই দেখা হবে।”

এজেড নিউজ বিডি ডট কম’র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

অপূর্ব’র নামে অর্থ আত্মসাৎ ও চুক্তিভঙ্গের অভিযোগ

অপূর্ব’র নামে অর্থ আত্মসাৎ ও চুক্তিভঙ্গের অভিযোগ
ছবি: সংগৃহীত

জনপ্রিয় অভিনেতা জিয়াউল ফারুক অপূর্ব বিনোদন জগতে বেশ সজ্জন হিসেবেই পরিচিত। তবে তার নামে অর্থ আত্মসাৎ, চুক্তি ভঙ্গ ও শিডিউল ফাঁসানোর অভিযোগ এনেছে একটি প্রযোজনা প্রতিষ্ঠান।

আলফা আই স্টুডিওস লিমিটেড (আলফা আই) নামের একটি প্রতিষ্ঠান এ অভিযোগ আনে।

প্রতিষ্ঠানটির দাবি, প্রতিষ্ঠান থেকে ২৪টি নাটকের জন্য ৫০ লাখ টাকায় চুক্তিবদ্ধ হন অপূর্ব। তবে মাত্র ৯টি নাটকে কাজ করে তেত্রিশ লাখ টাকা নিয়ে সব ধরনের যোগাযোগ থেকে বিরত রয়েছেন এই অভিনেতা।

এতে প্রযোজনা প্রতিষ্ঠানটি আর্থিক ক্ষতির অভিযোগ এনে টেলিভিশন অ্যান্ড ডিজিটাল প্রোগ্রাম প্রডিউসারস অ্যাসোসিয়েশন অব বাংলাদেশ (টেলিপাব) এবং অভিনয় শিল্পী সংঘের কাছে বিচার চেয়ে লিখিত অভিযোগ করেছেন।

আলফা আইয়ের ব্যবস্থাপনা পরিচালক শাহরিয়ার করিম ভূঁইয়া সোমবার (১১ মার্চ) এ অভিযোগ করেন।

অপূর্বর বিপরীতে আনীত অভিযোগে বলা হয়েছে, জিয়াউল ফারুক অপূর্ব ১ নভেম্বর ২০২২ তারিখ হইতে ৩১ অক্টোবর ২০২৩ পর্যন্ত আলফা আই স্টুডিওস লিমিটেডকে প্রতি মাসে ৩ দিন শিডিউল দিবেন এবং ওই ৩ দিনে ২টি নাটকের শুটিং হবে। যদি কোনো মাসে ৩ দিন শুটিং করার শিডিউল দিতে না পারেন তবে পরবর্তী মাসের সঙ্গে মো. জিয়াউল ফারুক অপূর্ব সমন্বয় করবেন। তবে চুক্তি অনুযায়ী কাজ করেননি তিনি, দাবি প্রযোজনা প্রতিষ্ঠানটির।

এমতাবস্থায় গেল ৩ মার্চ অভিনেতার বিরুদ্ধে ৭ দিনের সময় বেঁধে দিয়ে লিগ্যাল নোটিশ পাঠায় প্রযোজনা প্রতিষ্ঠান। তবে সময় অতিক্রম হলেও যোগাযোগ করেননি অপূর্ব। বিষয়টি আদালত পর্যন্ত গড়ানোর আগেই সংগঠনকে অবগত করেন সমাধানের জন্য।

টেলিভিশন প্রোগ্রাম প্রডিউসারস অ্যাসোসিয়েশন অব বাংলাদেশের (টেলিপ্যাব) সাধারণ সম্পাদক সাজু মুনতাসির সঙ্গে যোগাযোগ করা হলে অভিযোগটি পেয়েছেন জানিয়ে বলেন, “আমরা খুব দ্রুত একটি মিটিং করে দুই পক্ষকে ডেকে বিষয়টি জানব। বিষয়টি সাংগঠনিকভাবেই দেখা হবে।”

এজেড নিউজ বিডি ডট কম’র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Download
ঠিকানা: মনসুরাবাদ হাউজিং, ঢাকা-১২০৭ এজেড মাল্টিমিডিয়া লিমিটেডের একটি প্রতিষ্ঠান।